‘যুক্তরাষ্ট্রের মনোভাবের ওপর কোরীয় উপদ্বীপের শান্তি’

প্রকাশ: ২০১৯-০৪-২৬ ৯:২১:০৫ এএম
শাহেদ হোসেন | রাইজিংবিডি.কম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :  উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ নেতা কিম জং উন বলেছেন, কোরীয় উপদ্বীপের শান্তি ও নিরাপত্তা পুরোপুরি নির্ভর করছে যুক্তরাষ্ট্রের ভবিষ্যত মনোভাবের ওপর।  শুক্রবার উত্তর কোরিয়ার সরকারি বার্তা সংস্থা কেসিএনএ এ তথ্য জানিয়েছে।

নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে পিয়ংইয়ংয়ের দাবিকে সহজে মেনে নিতে ওয়াশিংটনের ওপর চাপ প্রয়োগের চেষ্টা বলে মনে করা হচ্ছে কিমের এই মন্তব্যকে। গত ফেব্রুয়ারি নিরস্ত্রীকরণ ইস্যুতে হ্যানয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও উনের মধ্যকার বৈঠকটি সমঝোতা ছাড়া ভেস্তে যায়। এরপর আর যুক্তরাষ্ট্র তাদের অবস্থান নমনীয় করেনি। কিম জং উন অবশ্য পরে জানিয়েছিলেন, তিনি যুক্তরাষ্ট্রের আরো নমনীয় দৃষ্টিভঙ্গির জন্য চলতি বছরের শেষ নাগাদ অপেক্ষা করবেন।

কিম জং উন বলেছেন, ‘কোরীয় উপদ্বীপ ও এই অঞ্চলের পরিস্থিতি নিশ্চল অবস্থার মধ্যে আছে এবং এটি জটিল অবস্থায় পৌঁছে গেছে। যুক্তরাষ্ট্র সম্প্রতি দ্বিতীয় ডিপিআরকে (দক্ষিণ কোরিয়ার সরকারি নাম)-যুক্তরাষ্ট্র সম্মেলনে বাজে আস্থার ভঙ্গি দেখানোয় এটি প্রকৃত অবস্থায় ফিরে যেতে পারে।’

তিনি বলেন, ‘ডিপিআরকে প্রত্যেকটি সম্ভাব্য পরিস্থিতির জন্য নিজেকে সুরক্ষা করবে।’

বৃহস্পতিবার রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে প্রথমবারের মতো বৈঠক করেছেন কিম জং উন। রাশিয়ার ভ্লাদিভস্তকের ওই বৈঠকে মস্কোর সঙ্গে সম্পর্ক আরো গভীর করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন উন। ধারণা করা হচ্ছে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারে ওয়াশিংটনের ওপর পরোক্ষ চাপ প্রয়োগের জন্যই রাশিয়া সফর করছেন তিনি।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৬ এপ্রিল ২০১৯/শাহেদ

     


Walton AC

আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

আবারো বা‌লিশ নি‌য়ে বিক্ষোভ

২০১৯-০৫-২১ ২:৫০:০৭ পিএম