আজহার-শফিকের ‘ব্রেইনফেড’

প্রকাশ: ২০১৮-১০-১৮ ১০:০৭:২০ পিএম
আবু হোসেন পরাগ | রাইজিংবিডি.কম

ক্রীড়া ডেস্ক : পাকিস্তান-অস্ট্রেলিয়া আবুধাবি টেস্টের তৃতীয় দিনে অদ্ভুতুড়ে আর হাস্যকর এক রান আউটের জন্ম দিয়েছেন আজহার আলী ও আসাদ শফিক।

তৃতীয় দিনের নবম ওভারের ঘটনা এটি। ৬৪ রানে ব্যাট করছিলেন আজহার। অস্ট্রেলিয়ান পেসার পিটার সিডলের বলটা ডাইভ করতে চেয়েছিলেন পাকিস্তান ব্যাটসম্যান। বল ব্যাটের কানায় লেগে চলে যায় গালি অঞ্চলে।

আজহার ভেবেছিলেন বাউন্ডারি হয়ে যাবে। তিনি এগিয়ে এসে দাঁড়িয়ে যান ক্রিজের মাঝপথে। নন স্ট্রাইক প্রান্ত থেকে শফিকও চলে গেছেন সেখানে। দুজন তখন ‘খোশগল্পে’ মত্ত। দুজনের মধ্যে কী কথা হচ্ছিল, সেটা তারাই ভালো বলতে পারবেন।

ওদিকে বলটা থেমে গিয়েছিল বাউন্ডারির কাছে গিয়ে। মিচেল স্টার্ক দৌড়ে গিয়ে বল ধরে পাঠান স্ট্রাইকিং প্রান্তে। বল ধরে স্টাম্প ভেঙে দেন উইকেটরক্ষক টিম পেইন। দুই ব্যাটসম্যান তখনো ক্রিজের মাঝখানে নির্বিকার দাঁড়িয়ে, ফেরার চেষ্টাটুকুও করেননি। অস্ট্রেলিয়া শিবিরে তখন উৎসব। আজহার ততক্ষণে বুঝতে পেরেছেন ভুলটা। হাঁটা দেন ড্রেসিং রুমের দিকে।

দুজনের সম্মিলিত টেস্ট খেলার অভিজ্ঞতা একশ ম্যাচেরও বেশি, রান ৯ হাজারের ওপরে, সেঞ্চুরি ২৫টি, বল খেলেছেন ২০ হাজারেরও বেশি। এমন অভিজ্ঞ দুই ব্যাটসম্যান বল বাউন্ডারি হয়েছে কি না, সেটা নিশ্চিত না হয়েই কীভাবে ক্রিজের মাঝে দাঁড়িয়ে গল্প করেন! যেটিকে বলা হচ্ছে ‘ব্রেইনফেড’ বা মাথা কাজ না করা। ক্রিকেটে গত কয়েক বছর ধরেই শব্দটা বেশ প্রচলিত।

আগের দিন যেমন ‘ব্রেইনফেড’ হয়েছিল অস্ট্রেলিয়ার মারসান লাবুশেনের। ইয়াসির শাহর বলে ডাইভ করেছিলেন মিচেল স্টার্ক।  বল ইয়াসিরের হাতে লেগে ভেঙে দেয় স্টাম্প। নন স্ট্রাইকে দাগের বাইরে দাঁড়িয়ে থাকা লাবুশেন ব্যাট নামিয়েছিলেন ঠিকই। কিন্তু অনেকটা ভেতরে থাকলেও ব্যাট ছিল শূন্যে ভেসে, রান আউট। 



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৮ অক্টোবর ২০১৮/পরাগ

   
 


Walton AC

আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

বেতন নির্ধারণ করবেন যেভাবে

২০১৯-০১-১৬ ৭:০৮:০৫ পিএম

চিনিতে ভয়, চিনির বিকল্প স্টিভিয়া

২০১৯-০১-১৬ ৬:৫৮:১৫ পিএম

ওয়ালটনের জমকালো আইপিও রোড শো

২০১৯-০১-১৬ ৬:১৯:৩৮ পিএম