শেয়ারবাজার: নিয়ম অনুসরণ করলে লাভ আসবেই

প্রকাশ: ২০১৯-১১-০৫ ৪:০৮:০৮ পিএম
নাসির উদ্দিন | রাইজিংবিডি.কম

বর্তমানে শেয়ারবাজারের নাম শুনলে অনেকেই আতঙ্কিত হন।  তারা মনে করেন শেয়ারবাজারের বিনিয়োগে সর্বস্ব হারাতে হয়। এ খাতে লাভবান হওয়ার সুযোগই নেই।  কিন্তু মানুষের ধারণা কম বলেই এ খাতে বিনিয়োগ করে লাভবান হতে পারছেন না।

তবে আপনি যদি সঠিক নিয়ম অনুসরণ করে বিনিয়োগ করতে পারেন তাহলে এ খাতটিই হতে পারে বিনিয়োগের উত্তম জায়গা।  যেখান থেকে লাভ আসবেই।

শেয়ার বাজার: যেসব নিয়ম মেনে চলবেন

বিনিয়োগ সম্পর্কে পরিপূর্ণ জ্ঞান বা ধারণা থাকা ও সবসময় আপডেট থাকা। বিনিয়োগকারীদের অজ্ঞতার কারণে শেয়ারবাজারে সফল হতে পারছেন না অনেকেই। তাই বিনিয়োগের আগে প্রয়োজন সঠিক ধারণা নেয়া। দেশের বর্তমান অর্থনৈতিক অবস্থা, শেয়ারবাজারের বর্তমান অবস্থা, বিগত কয়েক বছরে শেয়ারবাজারের অবস্থা কি ছিল, যে সেক্টরে বিনিয়োগ করতে চান, সে সেক্টরের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ সম্ভাবনা জেনে নেয়া। বিভিন্ন ক্যাটাগরির স্টক সম্পর্কে ধারণা রাখা।

পরিকল্পনা:

শেয়ার কেনার আগে একটি পরিকল্পনা তৈরি করতে হবে।  কেমন মুনাফা আসলে বা কত লোকসান হলে আপনি শেয়ার বিক্রি করে করে দিবেন, তা আগে থেকেই সিদ্ধান্ত নিয়ে রাখুন। স্টক এক্সচেঞ্জের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে পোর্টফোলিও তৈরি করুন।  ৫ লাখ টাকা দিয়ে ১টি কোম্পানির শেয়ার না কিনে, এ পরিমাণ টাকা দিয়ে কয়েকটি ভিন্ন ভিন্ন কোম্পানির শেয়ার কিনুন। ফলে এর মধ্যে কোনো একটি কোম্পানির শেয়ারের দরপতন ঘটলেও আপনি বড় ক্ষতির সম্মুখীন বা সর্বস্ব হারানোর ঝুঁকি থেকে বেঁচে যাবেন।  এর থেকেও ভাল হয় ভিন্ন ভিন্ন সেক্টরের মাঝে পোর্টফোলিও গড়া।  যদি আপনার হাতে বিনিয়োগ করার মতো যথেষ্ট অর্থ থাকে, তবে কমপক্ষে ৩০টি পোর্টফোলিও গড়ে তোলার ব্যাপারে পরামর্শ দিয়ে থাকেন শেয়ারবাজার বিশেষজ্ঞরা।

বেশি সময়ের জন্য বিনিয়োগ করুন:

নিম্নতম তিন বছর বা ততধিক সময়ের জন্য বিনিয়োগ করছেন এ চিন্তা নিয়ে শেয়ার কিনুন।  আবার অনেক সময় দেখা যায় হয়তো অল্প সময়ের ব্যবধানে তা বিক্রি করে ফেলাটা লাভজনক মনে হতে পারে।  তবুও ধৈর্য্য ধরুন, অপেক্ষা করুন সঠিক সময়টির জন্য।

কারো কথায় বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত না নিয়ে নিজে পর্যালোচনা করে দেখুন। কোম্পানির কোনো অপ্রকাশিত তথ্য আছে কিনা, সংশ্লিষ্ট খাতের ব্যবসায় কোনো পরিবর্তন ঘটছে কিনা সব খোঁজখবর নিয়ে সিদ্ধান্ত নিন।

অতিমাত্রায় লেনদেন নয়:

পরিকল্পনার মধ‌্য দিয়ে শেয়ারবাজারে লেনদেন করতে হবে। খুব বেশি লেনদেন করা ভালো বিষয় নয়।  কোনো শেয়ার বিক্রি করার পর এর টাকা দিয়ে ওই দিনই শেয়ার কেনার জন্য অস্থির হয়ে উঠার কোনো মানে নেই। বরং একটু অপেক্ষা করে পরিকল্পনা তৈরি করুন।  কোন শেয়ারে বিনিয়োগ অনুকূল অবস্থায় আছে, এরপরে বিনিয়োগ করুন।

খারাপ সময়ের জন্য প্রস্তুতি রাখুন:

শেয়ারবাজারে দরপতন নিয়মিত বিষয়। বাজার চাঙা থাকার অবস্থায় বিনিয়োগ করেছেন, কিন্তু মুনাফা নেয়ার আগেই দরপতন শুরু হয়েছে।  একটি শেয়ারের উর্ধমুখী ধারা দেখে আপনি বিনিয়োগ করেছেন, কিন্তু শেয়ার ম্যাচিউরড হওয়ার আগেই দাম কমে গেছে। এমন খারাপ সময়ের জন্য প্রস্তুত থাকুন।

গুজবে কান না দেয়া:

বাজারে বিভিন্ন কোম্পানির ভাল-মন্দ নিয়ে নানা ধরনের গুজব ভেসে বেড়ায়। কিন্তু অন্ধভাবে কোনো কথা কান দেবেন না। অনুসন্ধান করে দেখুন সত্যতা আছে কিনা।


ঢাকা/নাসির/সাইফ


   



আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

একঝাঁক তারকার ‘রূপ’

২০১৯-১১-১৭ ১১:০৯:১০ এএম

কেন খাবেন পেঁয়াজ

২০১৯-১১-১৭ ১১:০২:২৮ এএম

কাঠ বোঝাই ট্রলি উল্টে হেলপার নিহত

২০১৯-১১-১৭ ১০:৪৯:১৩ এএম

দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু

২০১৯-১১-১৭ ৯:৪৮:০৯ এএম

বন্ধুর বিয়েতে পেঁয়াজ উপহার

২০১৯-১১-১৭ ৮:৫৫:০৯ এএম

ফটোগ্রাফ নাকি পেইন্টিং?

২০১৯-১১-১৭ ৮:৪৬:০৭ এএম

সহপাঠীদের ‘দাদি’ তিনি

২০১৯-১১-১৭ ৮:৪১:৩৬ এএম

‘সালমান খানের পা ছুঁতে চাই’

২০১৯-১১-১৭ ৮:৩২:০৫ এএম