‘বিষয়টি গোপন রাখতে চাই’

প্রকাশ: ২০১৯-০৮-১২ ৩:১১:৫১ পিএম
আমিনুল ইসলাম শান্ত | রাইজিংবিডি.কম

শবনম বুবলি

আমিনুল ইসলাম শান্ত: ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শবনম বুবলি। ঈদ উৎসবকে কেন্দ্র করে বিগত কয়েক বছর এই অভিনেত্রীর সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। জাকির হোসেন রাজু পরিচালিত ‘মনের মতো মানুষ পাইলাম না’ সিনেমায় তার সঙ্গে জুটি বেঁধে অভিনয় করেছেন শাকিব খান। এ উপলক্ষে রাইজিংবিডির মুখোমুখি হয়েছিলেন শবনম বুবলি। তার সঙ্গে আলাপচারিতার অংশবিশেষ পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো—

রাইজিংবিডি: ‘মনের মতো মানুষ পাইলাম না’- কেমন গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে সিনেমাটি?

শবনম বুবলি: খুব ভালো একটি গল্পের সিনেমা এটি। মানুষ ভাবতে পারেন, স্বামী-স্ত্রী কিংবা প্রেমিক-প্রেমিকার পয়েন্ট অব ভিউ থেকে সিনেমাটির নামকরণ করা হয়েছে। কিন্তু ঘটনা আসলে সেরকম কিছু না। সামাজিক নানা প্রেক্ষাপট থেকেও কিন্তু আমরা বলে থাকি— এটা মনের মতো হলো না। সেই সামাজিক প্রেক্ষাপটে সিনেমাটি নির্মাণ করা হয়েছে। জাকির হোসেন রাজু স্যার মেধাবী নির্মাতা। তিনি সুন্দর একটি গল্প নিয়ে কাজটি করেছেন। গত ঈদে আমার ‘পাসওয়ার্ড’ মুক্তি পেয়েছিল। অনেকে ওই সিনেমার সঙ্গে মিলিয়ে ভাবতে পারেন- এটিও হয়তো ‘পাসওয়ার্ড’ ঘরানার সিনেমা। কিন্তু দুটি গল্প একদম আলাদা। এটি দেশের সিনেমা, সমাজের সিনেমা, ভালোবাসার সিনেমা। আমার বিশ্বাস, এই সিনেমাটি দেখার পর প্রত্যেকটি মানুষ তার জীবনের কোনো না কোনো কাহিনির সঙ্গে মিল খুঁজে পাবেন। বিশেষ করে প্রত্যেকটি মেয়েকে সিনেমাটি দেখার আহ্বান জানাচ্ছি।

রাইজিংবিডি: ঢাকাই সিনেমা সংকটের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। ঠিক এই সময়ে এই সিনেমাটিই দর্শক কেন দেখবেন?

শবনম বুবলি: চলচ্চিত্রের সংকট অনেক বছর ধরেই চলছে। আমরা যখন ছোট ছিলাম তখন দারুণ দারুণ গল্প নিয়ে সিনেমা নির্মিত হতো। সেসব সিনেমা দেখেছি এবং বড়দের কাছ থেকে গল্পও শুনেছি। ২০০০ সালের পর টানা অশ্লীলতার এক সময় পার করেছে আমাদের ইন্ডাস্ট্রি। সংকটের সময়টা তখন থেকে শুরু হয়ে এখনো চলছে। তখন অনেক বড় বড় প্রযোজক সরে গিয়েছেন। দর্শক হয়েছেন হলবিমুখ। বর্তমান পরিস্থিতিতে সবাই চেষ্টা করছেন ভালো সিনেমা নির্মাণের। ভালো সিনেমা নির্মাণও হচ্ছে। দর্শকও হলমুখী হয়েছেন। এখন আমার মনে হচ্ছে— ঠিক এই সময়ের জন্যই এই সিনেমাটি নির্মাণ করা হয়েছে। শুটিং শুরু হওয়ার পর থেকে শেষ পর্যন্ত সিনেমাটির গল্পে অনেক পরিবর্তন আনা হয়েছে। এটা করা হয়েছে সমসাময়িক বিষয়ের কথা চিন্তা করে। এজন্য বলব, এই সময়ে এই সিনেমাটি দর্শকের দেখা উচিৎ। 

আরেকটি বিষয় বলতে চাই— ভালো সিনেমার পাশাপাশি ভালো প্রেক্ষাগৃহও খুব দরকার। অনেক সিনেপ্লেক্স নির্মিত হচ্ছে এটা ইতিবাচক দিক। মানুষ বিনোদনের জন্য সিনেমা দেখতে প্রেক্ষাগৃহে যান। কিন্তু লোকাল প্রেক্ষাগৃহে প্রচন্ড গরম, ছারপোকাসহ নানা সমস্যা রয়েছে। একটি ভালো সিনেমা দেখতে গিয়ে এমন পরিস্থিতির মুখে পড়লে সবারই খারাপ লাগবে। আমি নিজেও এমন সমস্যা ফেস করেছি। এজন্য আমার মনে হয়, ভালো একটি সিনেমার পাশাপাশি ভালো পরিবেশ তৈরি করাও গুরুত্বপূর্ণ।

রাইজিংবিডি: সিনেমাটিতে আপনার চরিত্র প্রসঙ্গে জানতে চাই।

শবনম বুবলি: এই বিষয়টি গোপন রাখতে চাই। কারণ বড় পর্দায় দেখে দর্শক যতটা আনন্দ পাবেন, আগে অল্প কথায় বলে দিলে আকর্ষণ কমে যাবে। জানার জন্য দর্শককে হলে আসতে হবে। কিন্তু একথা বলতে চাই- চরিত্রটি আমাদের মনের কথা বলবে, সমাজের কথা বলবে। ঈদুল আজহাতে মানুষ কোরবানি নিয়ে ব্যস্ত থাকেন। নানাভাবে আনন্দ করেন। আমার মনে হয়, এই সিনেমাটি একটু হলেও মানুষের আনন্দে বাড়তি মাত্রা যোগ করবে।  

রাইজিংবিডি: সিনেমাটির নির্মাণ শৈলী নিয়ে বলুন…

শবনম বুবলি: স্যারের সঙ্গে এটাই আমার প্রথম কাজ। নির্মাতার পাশাপাশি রাজু স্যার ভীষণ ভালো একজন অভিনেতা। সিনেমার চিত্রনাট্য, কাহিনি ও পরিচালনা সবই করেছেন তিনি। অত্যন্ত যত্নসহকারে কাজটি করেছেন। শুটিংয়ের সময় পুরো টিম সিনেমাটির সঙ্গে ইনভলব হয়ে গিয়েছিলাম। প্রথম যেদিন সিনেমাটির গল্প শুনি, সেদিন খুব কেঁদেছিলাম। গল্পের কিছু ব্যাপার এত টাচি ছিল যে, মনে হচ্ছিল এটা তো আমারই গল্প। আমার বিশ্বাস, সিনেমাটি দেখার পর আমার মতো দর্শকরাও এই স্পর্শকাতর বিষয়গুলো অনুভব করবেন।  সহশিল্পী শাকিব খান তার চরিত্র বা সিনেমাটি আরো ভালো কীভাবে করা যায়, সে বিষয়ে চেষ্টা করেছেন। আমরা শুধু শিল্পী হিসেবে কাজ করিনি, নিজেদের মতো করে কাজটি আরো ভালো করার চেষ্টাও করেছি।  

রাইজিংবিডি: দর্শকদের সঙ্গে হলে সিনেমাটি দেখবেন?

শবনম বুবলি: অবশ্যই দেখবো। এটা আমার কাজেরই অংশ। ‘বসগিরি’ থেকে শুরু করে আমার প্রত্যেকটি সিনেমা হলে গিয়ে দর্শকদের সঙ্গে দেখেছি। এক্ষেত্রে বোরখা পরে কিংবা একটু আড়াল হয়ে সিনেমা দেখি। আর অবশ্যই সেটা লোকাল কোনো সিনেমা হলে। কারণ নিজেকে বিচার করা। আমি কাজটি কেমন করেছি, সেটা সরাসরি দর্শকের মুখ থেকে শুনতে পারি এবং নিজের কোথায় কোথায় ভুল আছে সেটা ধরার চেষ্টা করি। 

রাইজিংবিডি: চলচ্চিত্রে অভিষেকের পর থেকে টানা শাকিব খানের সঙ্গে কাজ করছেন। অন্য কোনো নায়কের সঙ্গে কাজ করেন না কেন?

শবনম বুবলি: যেসব কাজের প্রস্তাব আসছে সেগুলো ঠিক আমার মনের মতো হচ্ছে না। গত চার বছরে খুব বেশি কাজ করিনি। বছরে হয়তো একটা দুইটা করে কাজ করেছি। কিন্তু সে কাজগুলো অনেক বেশি আলোচনায় থেকেছে। সেটা হয়তো দর্শকদের ভালোবাসার কারণে। শাকিব খানকে ছাড়া অন্য কারো সঙ্গে কেন কাজ করব না, অবশ্যই করব। সব পরিচালক, নায়কের সঙ্গেই কাজ করতে চাই। কিন্তু বিগত দিনে যেসব কাজ আমরা করেছি, সেখানে মিনিমাম একটা লেভেল মেইনটেইন করার চেষ্টা করেছি। জানি না কতটা পেরেছি। শাকিব খান ছাড়া অন্য কারো সঙ্গে কাজ করলে এই জায়গাটাতে যেন দর্শক আশাহত না হন। অন্য কোনো নায়কের সঙ্গে ভালো গল্প পেলাম কিন্তু ভালো অ্যারেঞ্জমেন্ট পেলাম না তাহলে তো হলো না। আসলে এই ভালোটার জন্যই অপেক্ষা করছি। যারা সিনেমায় কাজের প্রস্তাব নিয়ে এসেছেন তাদেরকে একটা কথাই বলেছি— নির্মাতা ও গল্প ভালো হতে হবে। সহশিল্পী নতুন হলেও আমার সমস্যা নেই। আর এজন্যই আমার অপেক্ষা। আর সময় তো ফুরিয়ে যায়নি, যতদিন বেঁচে আছি ততদিন চলচ্চিত্রের সঙ্গেই থাকব। সামনে অন্য নায়কদের সঙ্গেও আমাকে দেখা যাবে। 

রাইজিংবিডি: বর্তমান ব্যস্ততা প্রসঙ্গে জানতে চাই।

শবনম বুবলি: এখন অন্য কোনো ব্যস্ততা নেই, এই সিনেমার প্রচারের কাজে সময় ব্যয় করছি। ঈদের পর নতুন কাজ শুরু করব, ইনশাআল্লাহ!  

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/১২ আগস্ট ২০১৯/শান্ত/তারা


   



আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

কেরানীগঞ্জে আগুন : নিহত বেড়ে ১৪

২০১৯-১২-১৪ ১১:০১:২৫ এএম

গেলেন ভুবনেশ্বর, এলেন শার্দুল

২০১৯-১২-১৪ ১০:৫৪:৫২ এএম

উচ্চ রক্ত শর্করার ৬ ঝুঁকি

২০১৯-১২-১৪ ১০:২৯:৪৬ এএম

২০২৪ পর্যন্ত লিভারপুলে ক্লপ

২০১৯-১২-১৪ ১০:২৮:১৬ এএম

জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের স্মরণ

২০১৯-১২-১৪ ১০:০৪:৪৪ এএম

অবসর ভেঙে ফিরছেন ব্রাভো

২০১৯-১২-১৪ ৯:২৯:০১ এএম

টিভিতে আজকের খেলা

২০১৯-১২-১৪ ৮:২৪:৩৫ এএম

বুবলী নায়িকা নাকি খলনায়িকা?

২০১৯-১২-১৪ ৮:২২:১৯ এএম