সৌদিতে সেনা পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

প্রকাশ: ২০১৯-০৯-২১ ৮:৪৪:৩১ এএম
আন্তর্জাতিক ডেস্ক | রাইজিংবিডি.কম

সৌদি আরবের আকাশ ও ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা জোরদার করতে সেনা পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। শুক্রবার এতে অনুমোদন দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

গত সপ্তাহে দুটি সৌদি তেল শোধনাগারে ড্রোন হামলার পর ঘনিষ্ঠ মিত্র যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে এ সহযোগিতা পেতে যাচ্ছে রিয়াদ। তেল শোধনাগারে এ যাবৎকালের সবচেয়ে বড় এই হামলার জন্য ইরানকে দায়ী করে আসছে যুক্তরাষ্ট্র ও সৌদি। তবে তেহরান এ অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে।

পেন্টাগন জানিয়েছে, মোতায়েনকৃত সেনার সংখ্যা পরিমিত হবে। তবে এটি কয়েক হাজার হবে না। মূলত প্রতিরক্ষার দায়িত্ব পালন করবেন এসব সেনা সদস্য। অবশ্য সেনাদের এই বহরের সঙ্গে কী ধরণের অস্ত্র পাঠানো হচ্ছে সে ব্যাপারে পেন্টাগন কোনো তথ্য জানায় নি।

এর আগে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছিল, সৌদিতে ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরোধক ব্যাটারি, ড্রোন ও যুদ্ধবিমান পাঠানোর কথা ভাবছে পেন্টাগন। এছাড়া অনির্দিষ্ট মেয়াদের জন্য ওই অঞ্চলে বিমানবাহী রণতরী মোতায়েনের কথাও ভাবছে যুক্তরাষ্ট্র।

মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী মার্ক এসপার শুক্রবার প্রেস ব্রিফিংয়ে বলেছেন, ‘সৌদি আরবের অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে প্রেসিডেন্ট মার্কিন বাহিনী মোতায়েনের অনুমতি দিয়েছেন, যা হবে প্রতিরক্ষা ধাঁচের এবং প্রাথমিকভাবে আকাশ ও ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষার ওপর মনোযোগ দেওয়া হবে।’

তিনি বলেন, ‘আমরা সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রতিরক্ষা সামর্থ্য বৃদ্ধির জন্য সেখানে সামারিক সরঞ্জাম পাঠানোর ব্যাপারেও কাজ করব।’


ঢাকা/শাহেদ


   



আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

বিপ্লবের ভগ্নিপতিসহ নিখোঁজ ২

২০১৯-১০-২২ ১১:৫৭:৩০ পিএম

আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেব : সাকিব

২০১৯-১০-২২ ১০:৪২:০৭ পিএম

জামালপুরের সেই সাধনা বরখাস্ত

২০১৯-১০-২২ ১০:২৩:২৯ পিএম