সকালে পেটব্যথা হলে যা করবেন

প্রকাশ: ২০১৯-০৭-১৭ ৯:২২:৫৮ এএম
এস এম গল্প ইকবাল | রাইজিংবিডি.কম

প্রতীকী ছবি

এস এম গল্প ইকবাল : পেটব্যথা নিজে কোনো রোগ নয়, এটি হলো বিভিন্ন রোগ বা স্বাস্থ্য সমস্যার একটি উপসর্গ। কিন্তু এটি অস্পষ্ট উপসর্গ বলে এর চিকিৎসা কিভাবে শুরু করতে হবে তা সহজে বোঝা যায় না। সকালে পেটব্যথা নিয়ে জেগে ওঠলে যা করা প্রয়োজন তা সম্পর্কে আলোচনা করা হলো। দুই পর্বের প্রতিবেদনের আজ থাকছে প্রথম পর্ব।

* বাথরুমে যান

কি কারণ পেটে ব্যথা করছে তা শনাক্তকরণ কঠিন হতে পারে, কিন্তু তলপেটে ব্যথা ইরিটেবল বাওয়েল সিন্ড্রোম বা আইবিএসের লক্ষণ হতে পারে, বলেন মেডস্টার ফ্রাঙ্কলিন স্কয়ার মেডিক্যাল সেন্টারের অন্তর্গত সেন্টার ফর ডাইজেস্টিভ ডিজিজের ইন্টারভেনশনাল এএন্ডোস্কপির পরিচালক ও গ্যাস্ট্রোএন্টারোলজির প্রধান স্টিভেন ফ্লেইশার। সকালে পেটব্যথার মানে এটা হতে পারে যে আপনার আইবিএস রয়েছে, এক্ষেত্রে বাথরুমে যাওয়া সহায়ক হতে পারে। ডা. ফ্লেইশার বলেন, ‘আপনি বাথরুমে যাওয়ার পর মলত্যাগ করতে সক্ষম হলে এ ব্যথা বা অস্বস্তি দূর হয়ে যেতে পারে।’

* ডাক্তারকে কল করুন

যেহেতু পেটব্যথা একটি অস্পষ্ট উপসর্গ, তাই আপনার সম্ভাব্য স্বাস্থ্য সমস্যা শনাক্ত করতে ডাক্তারকে কল করুন। কিছু ফ্যাক্টর (যেমন- ব্যথার অবস্থান ও ধরন) বিবেচনা করে একজন ডাক্তার আপনাকে পরামর্শ দিতে পারেন যে জরুরি বিভাগে যেতে হবে অথবা বহির্বিভাগের ডাক্তারের কাছে গেলেই হবে অথবা ঘরোয়া চিকিৎসাতেই চলবে, বলেন এনওয়াইইউ ল্যানগোন স্কুল অব মেডিসিনের মেডিসিন বিভাগের ক্লিনিক্যাল প্রফেসর এবং কনকর্ডি মেডিক্যাল গ্রুপের অংশীদার জোনাথন কোহেন। তিনি যোগ করেন, ‘একজন ডাক্তারকে কল করে স্বাস্থ্য সমস্যা নিয়ে কথা বলাতে কোনো ক্ষতি নেই। ডাক্তাররা আপনাকে কিছু প্রশ্ন করেই তুলনামূলক ভালো সিদ্ধান্তে পৌঁছতে পারেন।’ ডা. ফ্লেইশার বলেন, ‘পেটব্যথা তীব্র হলে অবিলম্বে ডাক্তারকে কল করুন। সাধারণত এক্ষেত্রে ঘরোয়া চিকিৎসায় কাজ হয় না।’

* সঙ্গীকে জিজ্ঞেস করুন

ফুড পয়জনিংয়ের আশঙ্কা করছেন? রেস্টুরেন্টে খাবার খেলে যে কেউ অসুস্থ হতে পারে। তাই রাতে রেস্টুরেন্টে পরিবার বা বন্ধুর সঙ্গে খাবার খাওয়ার পর সকালে পেটব্যথা অনুভব করলে আপনার সঙ্গে যিনি খাবার খেয়েছেন তারও অনুরূপ সমস্যা হচ্ছে কিনা জেনে নিন। ফুড পয়জনিং হতে পারে এমন যেকোনো খাবার খাওয়ার ক্ষেত্রে একথা প্রযোজ্য।

* বসকে কল করুন

কোনো অসুস্থতা অনুভব করলে অফিসে যাবেন কিনা সিদ্ধান্ত নিতে কিছু বিষয় বিবেচনা করতে পারেন। আপনার পেটব্যথা নতুন কিছু না হলে (এমনকি সচরাচরের তুলনায় একটু বেশি হলেও) অথবা ওটিসি ওষুধে কাজ হলে অফিস করতে পারেন। কিন্তু পেটব্যথা অস্বাভাবিক হলে অথবা এটিকে স্টমাক ফ্লু’র উপসর্গ মনে হলে কাজ থেকে বিরতি নিন। ডা. ফ্লেইশার বলেন, ‘পেটে হঠাৎ তীব্র ব্যথা অনুভূত হলে অফিসে না গিয়ে ডাক্তারের শরণাপন্ন হোন।’

* ব্রেকফাস্ট করুন

পেটব্যথার সঙ্গে অন্য কোনো উপসর্গ না থাকলে ব্রেকফাস্ট এড়িয়ে যাওয়ার প্রয়োজন নেই। পেটব্যথায় খাবার খেলে বমিবমি ভাব হবে এমন কোনো কথা নেই, বরং পেটে কিছু খাবার গেলে পেটের সমস্যা প্রশমিত হতে পারে, বলেন ডা. কোহেন। নিউ ইয়র্ক সিটিতে অবস্থিত মাউন্ট সিনাই হসপিটালের ক্লিনিক্যাল গ্যাস্ট্রোএন্টারোলজি অ্যান্ড এন্ডোস্কপির পরিচালক ডেভিড গ্রিনওয়াল্ড বলেন, ‘কিন্তু ফাস্টফুড থেকে বিরত থাকুন। এর পরিবর্তে সহজপাচ্য খাবার খান।’

* একাধিক কাপ কফি পান থেকে বিরত থাকুন

দুশ্চিন্তা করবেন না, আমরা আপনাকে কফি সম্পূর্ণরূপে বর্জন করতে বলছি না। কিন্তু অ্যাসিড রিফ্লাক্স সকালে পেটব্যথার কারণ হলে কফি সীমিত করুন। ডা. ফ্লেইশার বলেন, ‘ক্যাফেইন ডাইজেস্টিভ সমস্যায় ভোগা লোকদের ওপর দু’ধরনের নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারে। প্রথমত, এটি খাদ্যনালি ও পাকস্থলির মধ্যকার ভাল্বের চাপ শিথিল করতে পারে, এর ফলে পাকস্থলির অ্যাসিড সহজেই খাদ্যনালিতে চলে আসতে পারে। এছাড়া এটি অন্ত্রের কার্যক্রমকে কঠিন করে তুলতে পারে, যার ফলে ডায়রিয়া হতে পারে।’ ডা. গ্রিনওয়াল্ডের পরামর্শ হলো, ‘যদি আপনি মনে করেন কফি ঝুঁকির কারণ হতে পারে, তাহলে এক সপ্তাহ কফি পান থেকে বিরত থাকুন। একটা নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত কফি সীমিত করে উপসর্গ ভালো হয় কিনা লক্ষ্য করতে পারেন। এক সপ্তাহ কফি থেকে দূরে থাকা কঠিন কিছু নয়।’

(আগামী পর্বে সমাপ্য)

তথ্যসূত্র : রিডার্স ডাইজেস্ট

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৭ জুলাই ২০১৯/ফিরোজ

     


Walton AC

আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

শহিদুল আলমের মামলা স্থগিত

২০১৯-০৮-১৮ ১:৪৯:১৫ পিএম

স্কুল ছাত্রের রহস্যজনক মৃত্যু

২০১৯-০৮-১৮ ১:১৭:১৪ পিএম

মানে-ফিরমিনোর গোলে লিভারপুলের জয়

২০১৯-০৮-১৮ ১২:৫১:৩২ পিএম

বংশাই নদীতে আইটি কর্মকর্তা নিখোঁজ

২০১৯-০৮-১৮ ১২:৩২:৩৫ পিএম