কাতারকে রোখার উপায় কী?

প্রকাশ: ২০১৯-১০-০৯ ৩:১৫:৩৩ পিএম
ক্রীড়া প্রতিবেদক | রাইজিংবিডি.কম

এশিয়ার বর্তমান চ্যাম্পিয়ন কাতার। ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে তারা রয়েছে ৬২তম অবস্থানে। বাংলাদেশ বলতে গেলে তলানিতে, ১৮৭তম। র‌্যাঙ্কিংয়ে দুই দলের পার্থক্য স্পষ্ট। বাংলাদেশ তাদের বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছে হেরেছে। আর সেই আফগানিস্তানকে ৬-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে কাতার।

তারা ২০২২ বিশ্বকাপের আয়োজক। সে কারণে নিজেদের অনেকদিন ধরেই প্রস্তুত করছে। অনুমিতভাবেই কাতারের বিপক্ষে কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে বাংলাদেশকে। বাংলাদেশের কোচ জিমি ডেও সে বিষয়ে অবগত। তাইতো তিনি ম্যাচ পূর্ববর্তী সংবাদ সম্মেলনে কাতারকে রোখা কঠিন। আর সেটা করতে হলে খুবই ভালো ফুটবল খেলতে হবে।

জিমি ডে বলেন, ‘এই ম্যাচকে সামনে রেখে গেল ১০দিন ধরে নিজেদের প্রস্তুত করেছি। ভুটানের বিপক্ষে ম্যাচ খেলেছি। ছেলেরা বেশ উজ্জীবিত। কাতার কঠিন প্রতিপক্ষ। ম্যাচটি খুবই কঠিন হবে। কাতারের ফুটবল কাঠামো উন্নত। দলে ভালো ভালো ফুটবলার রয়েছে। যারা ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, ইউরোপে খেলে। তাদের রুখে দেওয়া কঠিন হবে। তাদের রুখতে হলে আত্মবিশ্বাসের সাথে খুবই ভালো ফুটবল খেলতে হবে।’

কাতারের বিপক্ষে কেমন ফল প্রত্যাশা করছেন? এমন প্রশ্নের জবাবে জিমি ডে বলেন, ‘অবশ্যই পরাজয় প্রত্যাশা করছি না। সেটা কেউ-ই করে না।’

কোচের সঙ্গে কণ্ঠ মিলিয়ে অধিনায়ক জামাল ভুঁইয়াও জানিয়েছেন ম্যাচটি কঠিন হবে, ‘কাতার এশিয়ার নাম্বার ওয়ান দল। কঠিন প্রতিপক্ষ। তাদের বিপক্ষের ম্যাচটি খুবই কঠিন হবে। খুব বেশি সুযোগ পাওয়া যাবে না। যেসব সুযোগ পাব সেগুলো কাজে লাগাতে হবে। নতুবা তারা আমাদের উপর ভীষণ চড়াও হয়ে খেলবে। আফগানিস্তানের বিপক্ষেও আমরা বেশ কিছু সুযোগ তৈরি করেছিলাম। কিন্তু গোল করতে পারিনি। এই ম্যাচে সেরকম করা যাবে না। সবাই শতভাগ দিয়ে খেলতে প্রস্তুত।’

২৩ সদস্যের বাংলাদেশ দলে তরুণ খেলোয়াড় আছে বেশ কয়েকজন। যারা রক্ষণভাগ, মিডফিল্ড ও ফরোয়ার্ড পজিশনে খেলে। অধিনায়ক হিসেবে জামাল ভুঁইয়া তাদের কিভাবে উদ্বীপ্ত করবেন, ‘আমি তাদের বলেছি ম্যাচটি উপভোগ করতে। দেশের জন্য খেলতে। তাদের বলেছি এরকম ম্যাচ তোমরা আরো খেলতে পারবা। ম্যাচে ভুল হতে পারে। কিন্তু চাপ নেওয়া যাবে না। স্বাভাবিক খেলাটা খেলতে হবে।’

জামাল ভুঁইয়া অনুপ্রেরণা নিচ্ছেন ভারতের কাছ থেকে। আফগানিস্তানকে ৬-০ গোলে উড়িয়ে দেওয়া কাতারকে তারা রুখে দিয়েছে। গোলশূন্য ড্র করেছে। যা ভারতের ফুটবল ইতিহাসে অন্যতম সেরা সাফল্য। জামাল বলেছেন, ‘আমরা ভারতের কাছ থেকে অনুপ্রেরণা নিতে পারি। তারা যেহেতু পেরেছে ভালো খেললেও হয়তো আমরাও পারব।’

ভারতের বিপক্ষে কাতার ১২৯টি গোলের সুযোগ তৈরি করেছিল। কিন্তু একটি থেকেও গোল আদায় করে নিতে পারেনি। বাংলাদেশের বিপক্ষে তারা কতগুলো গোলের সুযোগ তৈরি করে দেখার বিষয়।


ঢাকা/আমিনুল


   



আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

আশুলিয়ায় হেরোইনসহ আটক ২

২০১৯-১০-১৮ ৩:১২:২৫ এএম

শেখ রাসেলের জন্মদিন আজ

২০১৯-১০-১৮ ১২:৪০:৫২ এএম

এক সপ্তাহ বিশ্রামে তামিম

২০১৯-১০-১৭ ১০:৪১:৪৮ পিএম

মোবারক হত্যা মামলায় রায় ২১ অক্টোবর

২০১৯-১০-১৭ ১০:৩৭:২২ পিএম