‘গোলাপি বলে টেস্ট খেলা উপভোগ্য হবে’

প্রকাশ: ২০১৯-১১-০৭ ৮:৫২:৫৪ এএম
আবু হোসেন পরাগ | রাইজিংবিডি.কম

নিজের সবশেষ দুই টেস্টে ভালো করতে পারেননি। বছরের শুরুতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে হ্যামিল্টন টেস্টে এক ইনিংসে বোলিং পেয়ে করেছিলেন রান দেওয়ার ডাবল সেঞ্চুরি। চট্টগ্রামে আফগানিস্তানের বিপক্ষেও ছিলেন নিজের ছায়া হয়ে।মেহেদী হাসান মিরাজ এরপর জায়গা হারিয়েছেন টি-টোয়েন্টি দলে।

ভারতে প্রথম টি-টোয়েন্টি জয়ের পর আজ সিরিজ জয়ের লক্ষ্যে নামবে বাংলাদেশ। মিরাজকে সেটি দেখতে হচ্ছে দেশে বসে, দর্শক হয়ে। তবে একদিন পর ভারতে উড়াল দেবেন তিনি নিজেও। টি-টোয়েন্টির পর টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হিসেবে ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশ খেলবে দুটি টেস্ট। যার একটি আবার দিবারাত্রির, গোলাপি বলে। রাইজিংবিডিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে অফ স্পিনিং অলরাউন্ডার মিরাজ কথা বললেন নিজের প্রস্তুতি, দলের সম্ভাবনা, চ্যালেঞ্জ নিয়ে।

ভারতে টেস্ট খেলতে যাচ্ছেন, প্রস্তুতি কেমন হলো?

মেহেদী হাসান মিরাজ: এই তো এক সপ্তাহ অনুশীলন করলাম। অনুশীলন ভালো হয়েছে আল্লাহর রহমতে। গোলাপি বলেও বোলিং করলাম। যেটা আমার জন্য নতুন অভিজ্ঞতা।

টি-টোয়েন্টি দলে নেই, আপনাকে ছাড়াই খেলছে দল, ব্যাপারটা কষ্ট দেয় কি না?

মেহেদী হাসান মিরাজ: আসলে ঠিক কষ্ট না। আমার জন্য আরও ভালো হয়েছে। নিজেকে আরও পরিপূর্ণভাবে তৈরি করতে হবে। কোন জায়গায় সমস্যা আছে, কোন জায়গায় উন্নতি করতে হবে, সেটা অনুধাবন করতে পেরেছি, বুঝতে পেরেছি। এখন আমি মনে করি টেস্ট দলে ঢোকা সহজ আছে। সামনে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ আছে, টেস্টে যদি ভালো করি তাহলে টি-টোয়েন্টিতেও হয়তো চিন্তা করবে।

আগে তিন ফরম্যাটে নিয়মিত খেলার কারণে খুব একটা বিরতি পাননি। এবারের বিরতিতে ফিটনেস নিয়ে কাজ করতে পেরেছেন কি না?

মেহেদী হাসান মিরাজ: হ্যাঁ, আমি ফিটনেস নিয়েও আলাদা কাজ করেছি। সেই সঙ্গে আমার ব্যাটিং, বোলিং নিয়েও কাজ করেছি।

জাতীয় লিগে নামার আগে বলেছিলেন, আপনার বোলিংয়ে লাইন ও লেংথে সমস্যা হচ্ছে। ‘এ’ দলের হয়ে শ্রীলঙ্কা সফরে সেই সমস্যা কিছুটা কাটিয়ে উঠেছেন। জাতীয় লিগে আরও উন্নতি করতে চান। কিন্তু লিগে শুধু একটি ম্যাচে বোলিং করার সুযোগ পেয়েছেন। সেখানে ঠিক কতটা উন্নতি করতে পারলেন?

মেহেদী হাসান মিরাজ: এখন অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে এসেছে। এখন যে আত্মবিশ্বাস আছে, এটা নিয়ে যদি ভারতে যেতে পারি আমার জন্য ভালো হবে।

ভারতে একটি টেস্ট হবে দিবারাত্রির, গোলাপি বলে।এটি দুই দলের জন্যই হবে প্রথম অভিজ্ঞতা। গোলাপি বলে খেলা নিয়ে কতটা রোমাঞ্চিত?

মেহেদী হাসান মিরাজ: ওটা ভালো লাগবে। নতুন অভিজ্ঞতা আমাদের জন্য, ওদের জন্যও। তবে আমার কাছে মনে হয়, একটু অজানা থাকবে দুই দলের জন্যই। কারণ, এটা নতুন একদম।

গোলাপি বলে টেস্টের আগে কোনো প্রস্তুতি ম্যাচ নেই। প্রস্তুতি ম্যাচ না খেলে সরাসরি গোলাপি বলে খেলাটা একটু কঠিন হয়ে গেল না?

মেহেদী হাসান মিরাজ: এটা তো অবশ্যই চ্যালেঞ্জ হবে, আমাদেরও হবে, ওদেরও হবে। 

মিরপুরে গোলাপি বলে অনুশীলন করেছেন। কেমন মনে হলো?

মেহেদী হাসান মিরাজ: বোলিংটা আমি করেছি। কারণ, মানিয়ে নেওয়ার একটা ব্যাপার আছে। হালকা একটু অস্বস্তি লাগছে। তবে মনে হচ্ছে, সামনে যেহেতু সময় আছে মানিয়ে নিতে পারব।

ভারত দেশের মাটিতে টানা ১১টি টেস্ট সিরিজ জিতেছে, সেখানে খেলা বাংলাদেশের জন্য কতটা চ্যালেঞ্জিং হবে? 

মেহেদী হাসান মিরাজ: অবশ্যই চ্যালেঞ্জিং। ওরা তো অনেক ওয়ার্ল্ড ক্লাস টিম। ওয়ার্ল্ড ক্লাস খেলোয়াড় আছে। আমাদের খেলোয়াড়দের জন্য যে জিনিসটা থাকবে, চ্যালেঞ্জ নিতে হবে। বিশ্বাসটা থাকবে তখনই যখন আমরা চ্যালেঞ্জটা নিতে পারব। আর অবশ্যই আমরা চ্যালেঞ্জ নিয়ে মাঠে নামব ইনশাল্লাহ।

ভারতের ২০ উইকেট (এক টেস্টে প্রতিপক্ষকে দুবার অলআউট করা) নেওয়ার সামর্থ্য কি আছে বাংলাদেশের?

মেহেদী হাসান মিরাজ: আমার কাছে মনে হয়, ২০ উইকেট নেওয়াটা আমাদের জন্য একটা বড় চ্যালেঞ্জ। কারণ, ওদের অনেক ওয়ার্ল্ড ক্লাস ব্যাটসম্যান আছে। আমি বলব না যে আমরা পারব না। আমরা অবশ্যই চেষ্টা করব যেন ২০ উইকেট নিতে পারি। আমাদের সর্বোচ্চটা দিয়ে চেষ্টা করব। তারপর বাকিটা আল্লাহর ইচ্ছা।

সাকিব নেই, তামিমও নেই। আপনাদের জন্য কাজটা তো কঠিন হয়ে গেল...

মেহেদী হাসান মিরাজ: সাকিব ভাই, তামিম ভাই আমাদের বাংলাদেশের জন্য সবচেয়ে বড় দুই সম্পদ। তাদের ছাড়া আমরা টেস্ট খেলব, এটা আমার চিন্তা করতেই অবাক লাগছে। তারপরও দিন শেষে তারা তো দলে নাই। দলে থাকলে আরও ভালো হতো। আমি মনে করি যারা আছি আমাদের সর্বোচ্চটা দিয়ে মাঠে নামব।

দলে নতুনরা আসছে, ভালোও করছে, কোনো চাপ অনুভব করছেন কি না?

মেহেদী হাসান মিরাজ: এটা খুবই ভালো। আমাদের দেশের ক্রিকেটের জন্য অনেক ভালো। কারণ, যার যার জায়গা থেকে নতুন খেলোয়াড়রা আসবে এবং পারফর্ম করবে। দেশের ক্রিকেটও উন্নত হবে। এটা আমাদের তরুণ প্রজন্মের জন্য আরও ভালো যে, আমরা দায়িত্ব নিচ্ছি, আমরা ভালো করছি। আমি মনে করি, পরের ধাপে এটা আমাদের জন্য আরও সহজ হয়ে যাবে।

আপনার টেস্ট উইকেটসংখ্যা এখন ৮৯টি, ভারত সিরিজে উইকেটের সেঞ্চুরির আশা তো করাই যায়?

মেহেদী হাসান মিরাজ: (হেসে) চেষ্টা করব, শতভাগ দেওয়ার জন্য। বাকি সব আল্লাহর ইচ্ছা।


ঢাকা/পরাগ


     



আজকের সর্বশেষ সংবাদ সমূহঃ

ফেনসিডিলসহ ভারতের নাগরিক আটক

২০২০-০৭-০৫ ৯:৫১:০৬ এএম

আইসোলেশনে ঘানার প্রেসিডেন্ট

২০২০-০৭-০৫ ৯:০৮:২৬ এএম

বলিউড সিনেমার গানে বৃষ্টি বিলাস

২০২০-০৭-০৫ ৮:৪৪:৩৫ এএম

কিশোরগঞ্জ পৌর শহরের দুঃখ যে সড়ক 

২০২০-০৭-০৫ ৭:৪৮:২১ এএম